রবিবার, ০২ অক্টোবর ২০২২, ১১:১৯ অপরাহ্ন
শিরোনামঃ
শিরোনামঃ
বাঘায় ১২১ পিস ইয়াবাসহ একজন আটক রাজবাড়ীতে পৌরসভার কাউন্সিলর অস্ত্র ও গুলিসহ আটক বাংলাদেশ রেলওয়েতে অপ্রাপ্তবয়স্ক শিশু স্টাফ নিয়োগ স্কুলছাত্রীকে ধর্ষণের পর গলাকেটে হত্যা: প্রাইভেট শিক্ষকের তিনদিনের রিমান্ড টঙ্গীতে মালবাহী ট্রেনের বগি লাইনচ্যুত পাংশায় পুলিশের অভিযানে আগ্নেয়াস্ত্র সহ আটক ৪ যুবক রাজবাড়ী জেলা পরিষদ নির্বাচনে প্রতীক বরাদ্দ, আ’লীগের প্রার্থী পেলেন তালগাছ সোনাইমুড়ী থানা পুলিশ কর্তৃক অভিযান পরিচালনা করে ৯০ বোতল ফেন্সিডিল সহ এক মাদক ব্যবসায়ী আটক নোয়াখালীর বেগমগঞ্জে র‌্যাবের অভিযানে ৪টি দেশীয় তৈরী অস্ত্র সহ এক চিহ্নিত অস্ত্রধারী সন্ত্রাসী গ্রেফতার নোয়াখালীর মাইজদীতে অষ্টম শ্রেণীর ছাত্রীকে ধর্ষণের পর গলা কেটে হত্যা
নোটিশঃ
দেশব্যাপি জেলা ও উপজেলা প্রতিনিধি আবশ্যক। নুন্যতম শিক্ষাগত যোগ্যতা এইচ এস সি/ সমমান পাস। যোগাযোগঃ 01715247336

শরণখোলার সন্ত্রাসীদের কর্মকান্ড বেড়ে চলছে

প্রতিবেদকের নাম / ২৮০ বার দেখা হয়েছে
নিউজ আপঃ বৃহস্পতিবার, ৯ জুলাই, ২০২০, ১২:৩৯ অপরাহ্ন

নিজস্ব প্রতিনিধি:  শরণখোলা উপজেলার ৩ নং রায়েন্দা ইউনিয়নের ৩ নং ওয়ার্ডের উত্তরমালিয়া রাজাপুরের সরদার বাড়ি গতকালকে মোঃ আসাদুল সরদার, পিতা মজিবর সরদার, মাতা রাবেয়া বেগম। মোঃ জুয়েল সরদার, পিতা মজিবর সরদার, মাতা রাবেয়া বেগম। মোঃ খলিল সরদার, পিতা কদম আলী সরদার, মাতা সুফিয়া বেগম। মাসুম সরদার, পিতা খলিল সরদার, মাতা বিউটি বেগম।
গতকাল দুপুরে হৃদয় সরদার পিতা বাবুল সরদার তাদেরকে বেধড়ক মারপিট করেন এবং তার পিতা বাবুল সরদার পারিবারিক কাজের জন্য চট্টগ্রামে আসেন। এই সুযোগে তার বোন কে কুপ্রস্তাব দেয়া। রাজি না থাকায় পূর্বশত্রতার জের ধরে তার ছেলেকে মেরে ফেলার পরিকল্পনা করেন। তার বোন পারভিন কে বাজে প্রস্তাব দিয়ে আসছিলেন আসাদুল সরদার। প্রস্তাব প্রত্যাখ্যান করায় তিনি বেপরোয়া হয়ে যান এবং তার ভিতরে ক্ষোভের সৃষ্টি হয়। বিষয়টা তার ভাই হৃদয় জিজ্ঞাসাবাদ করার জন্য তার কাছে গেলে তিনি ওই অবস্থাতে তাকে মারা শুরু করেন। পরে তাদের সকল সদস্যগণ টেনে বের করে মারধর করে। তারা ডাক্তারের চিকিৎসা নেয়ার জন্য মেডিকেলে যেতে চাইলে তাদেরকে দেশীয় অস্ত্রশস্ত্র নিয়ে রাস্তার উপরে দাঁড়িয়ে থাকেন যেন বাড়ি থেকে বের হতে না পারেন। তারা কোনমতেই পুরো পরিবারসহ বাড়ির পিছন দিয়ে পালিয়ে শরণখোলা উপজেলা মেডিকেল হাসপাতালে ভর্তি হন। সেখানে জুয়েল সরদার কিছু সাঙ্গুপাঙ্গু নিয়ে গত কালকে এসে হুমকি দিয়ে যান। যদি মামলায় যায় তাহলে তাদেরকে জীবনে মেরে ফেলা হবে এবং তার বোনকে ইজ্জতহানি করা হবে এবং আজকে ও একই ভাবে হুমকি দিয়ে আসেন। বতর্মানে ও মেডিকেলের আসে পাসে তাদের বাহিনী নিয়ে ঘোরাঘুরি করেন। তাদেরকে থানায় যেতে দেয়া হচ্ছেনা বিষয়টি শরণখোলা উপজেলা সকল সুশীল সমাজ এবং প্রশাসনের দৃষ্টি আকর্ষণ করছেন শরনখোলা আলোর দিশারী সংগঠন।
বর্তমানে ভিকটিম নিজের বাড়িতে যেতে পারছেন না আজ সন্ধ্যা বেলা ৩ নং ওয়ার্ড মেম্বার বাবুল আকন তিনি উপস্থিত হন এবং তাদের মধ্যে সালিসি  বৌঠক করার কথা বলেন কিন্তু আসাদুল সরদার গং শালিস বসতে রাজি নাহয়ে চলে যান।
শরণখোলা উপজেলার সকলের কাছে হৃদয় সরদারের পরিবার বিনীত অনুরোধ করেন এই সন্ত্রাসী কার্যকলাপ থেকে আমাদের মত সাধারন মানুষকে একটু মুক্তি দিন। সকলের সার্বিক সহযোগিতা কামনা করেন।


এই বিভাগের আরও খবর....
এক ক্লিকে বিভাগের খবর